Share on whatsapp
Share on twitter
Share on facebook
Share on email
Share on telegram
Share on linkedin

মাথা পিছু ২১ টাকা করে দিয়ে ভোট চাইছে বিজেপি ! হিসেব দিলেন অভিষেক

Share on whatsapp
Share on facebook
Share on twitter
Share on email
Share on telegram
Share on linkedin

news bazar24: আবার চ্যালেঞ্জ অভিষেকের ! আর তাতেও সাড়া নেই গেরুয়া শিবিরের৷ গতকাল শনিবার কুলপির নির্বাচনী কর্মীসভা থেকে ফের মোদীকে -কে চ্যালেঞ্জ ছুঁড়ে দিলেন তৃণমূলের সর্বভারতীয় সাধারণ সম্পাদক অভিষেক বন্দোপাধ্যায় ৷ উল্লেখ্য,লক্ষীর ভান্ডার নিয়ে আগেই কেন্দ্র কে চ্যালেঞ্জ করেছিলেন তিনি৷ এবার কেন্দ্রবিন্দুতে আসার জন্য রান্নার গ্যাস নিয়ে বিজেপিকে চ্যালেঞ্জ ছুড়লেন তিনি ৷ অভিষেকের দাবি , একক ভাবে এবং জোটে যে ১৭টি রাজ্যে ক্ষমতায় রয়েছে বিজেপি তার মধ্যে একটি রাজ্যেও বিজেপি লক্ষ্মীর ভাণ্ডার চালু করতে পারলে রাজনীতি ছেডে় দেবেন বলে চ্যালেঞ্জ। আর রান্নার গ্যাস বিনামূল্যে দিয়ে দেখাক বিজেপি৷ প্রবীণ নাগরিক আর সাংবাদিকদের রেলে ছাড় পর্যন্ত দিতে পারছেন না ,আবার রান্নার গ্যাস ফ্রিতে দেবে ! তাহলে তিনি আসন্ন লোকসভা নির্বাচনে বাংলার ৪২ কেন্দ্র থেকেই প্রার্থী তুলে নেবেন ৷

প্রধানমন্ত্রী মোদী কি বলেছেন গ্যাস নিয়ে ?

প্রধানমন্ত্রী মোদী সম্প্রতি বলেন, ইডি তল্লাশি চালিয়ে বিভিন্ন জায়গা থেকে বাজেয়াপ্ত করেছে তিন হাজার কোটি টাকা, যা দেওয়া হবে দেশের সাধারণ মানুষকে ৷ আর এই প্রসঙ্গকে টেনেই নরেন্দ্র মোদীকে সরাসরি কটাক্ষ করেন যুবরাজ।

অভিষেক বন্দ্যোপাধ্যায় কি বললেন ?

দক্ষিণ ২৪ পরগনার মথুরাপুর কেন্দ্রে ভোট প্রচারে গিয়ে অভিষেক বন্দ্যোপাধ্যায় বলেন, “বিজেপি বলছে ক্ষমতায় এলে ওরা নাকি লক্ষ্মীর ভাণ্ডারে তিন হাজার টাকা করে দেবে ৷ আমি ওদের অনুরোধ কবর, আপনাদের লক্ষ্মীর ভাণ্ডারের টাকা দিতে হবে না ৷ আপনারা পারলে ১০০০ টাকার গ্যাস বিনামূল্যে করে দিন৷ একটি বিজ্ঞপ্তি দিক৷ আগামী পাঁচ বছর এক হাজার টাকার গ্যাস সিলিন্ডার বিনামূল্যে দেওয়া হবে৷ আমি কথা দিয়ে যাচ্ছি, তৃণমূল কংগ্রেস সব আসন থেকে প্রার্থী তুলে নেবে৷ ”।

যুবরাজ বলেন, ভারতের একশো চল্লিশ কোটি মানুষকে তিন হাজার কোটি টাকা দিলে মাথাপিছু পাবেন একুশ টাকা৷ বিজেপি একুশ টাকা দিয়ে পাঁচ বছরের ভোট চাইছে ৷ এই প্রসঙ্গেই বিজেপিকে ফের বাংলা বিরোধী, স্বৈরাচারী, অত্যাচারী, জমিদার বলে কটাক্ষ অভিষেকের ৷

প্রধানমন্ত্রীর ‘আচ্ছে দিন’ যে আসে নি তার প্রমান বর্তমানে জিনিসপত্রের মূল্যবৃদ্ধি, কথা মতো মানুষের চাকরি হয়নি, ৪০০ টাকার রান্নার গ্যাস হয়েছে ১১০০ টাকা, কালো টাকা উদ্ধার করা সম্ভব হয়নি বরং নোটবন্দির সময় মানুষকে হতে হয়েছে হয়রানির শিকার,

আধার – প্যানের লিংকের নাম সাধারণ মানুষের থেকে ১০০০ টাকা নিয়েছে মোদী সরকার । আমফান থেকে কোভিড কোনো বিপদেই বাংলায় পাওয়া যায়নি বিজেপি নেতৃত্বদের উল্টে সাহায্যের হাত বাড়িয়ে দিয়েছেন তৃণমূলের নেতৃত্ব তথা কর্মী সমর্থকেরাই৷

করোনার অজুহাত দিয়ে দেশের প্রবীণ নাগরিক ও সাংবাদিকদের রেল সফরে ছাড় বন্ধ করলেও আজ পর্যন্ত ছাড় চালু করেনি । বিজেপি এদের সম্মান দিতে চাইনা ,কিন্তু ব্যবহার করবে।

বীরভূম, ঝাড়গ্রাম, ডায়মন্ড হারবার ও আসানসোল এই ৪টি লোকসভা কেন্দ্রে এখনও প্রার্থী দিতে পারেনি বিজেপি, সেই নিয়েও কেন্দ্রকে নিশানা করেছেন অভিষেক ৷

Share on whatsapp
Share on facebook
Share on twitter
Share on email
Share on telegram
Share on linkedin

সম্পর্কিত খবর