বাংলাদেশে পেঁয়াজ রফতানি বন্ধ করে দেওয়ার কেন্দ্রীয় সিদ্বান্তে ব্যাপক সমস্যায় ট্রাকচালক এবং ব্যবসায়ীরা। - Newsbazar24
মালদা

বাংলাদেশে পেঁয়াজ রফতানি বন্ধ করে দেওয়ার কেন্দ্রীয় সিদ্বান্তে ব্যাপক সমস্যায় ট্রাকচালক এবং ব্যবসায়ীরা।

বাংলাদেশে পেঁয়াজ রফতানি বন্ধ করে দেওয়ার কেন্দ্রীয় সিদ্বান্তে ব্যাপক সমস্যায় ট্রাকচালক এবং ব্যবসায়ীরা।

Newsbazar 24 : বাংলাদেশে পেঁয়াজ রফতানি বন্ধ করে দেওয়ার কেন্দ্রীয় সরকারের সিদ্বান্তে ব্যাপক সমস্যার মুখে পিয়াজ রপ্তানিকারক থেকে শুরু করে ট্রাকচালক এবং ব্যবসায়ীরা। হঠাত হরে জারী করা এই হঠকারি সিদ্ধান্তে মালদহ জেলার মহদীপুর ভারত বাংলাদেশ আন্তর্জাতিক স্থল বন্দরে নাসিক সহ বিভিন্ন রাজ্য থেকে আসা পেঁয়াজ বোঝাই গাড়ি গুলি আটকে পড়েছে। না পারছে বাংলাদেশে পেঁয়াজ রপ্তানি করতে, না ফিরে যেতে পারছে নিজ রাজ্যে। দুই যাঁতাকলে পড়ে সমস্যায় লরি চালক এবং ব্যবসায়ীরা। এই বিষয়ে পিয়াজ রপ্তানিকারক হৃদয় ঘোষ জানান সূর্যের আলো এবং বৃষ্টির কারণে লরি বোঝাই পিয়াজ গুলিতে পচন ধরতে শুরু করেছে। ফলে যতদিন যাবে লাফিয়ে লাফিয়ে বাড়বে ক্ষতির পরিমাণ। ভিন রাজ্য থেকে পাড়ি দিয়ে বাংলাদেশে পেঁয়াজ রপ্তানি করতে এসে আটকে পড়ায় ইতিমধ্যে টাকাপয়সা শেষের দিকে চালকদের।ফলে ইচ্ছা থাকলেও নিজ রাজ্যে ফিরে যেতে পারছেন না তারা। এই মুহূর্তে মহদীপুর স্থলবন্দরে প্রায় ৪০০ পেঁয়াজ বোঝাই গাড়ি আটকে। এখনো পর্যন্ত প্রায় কুড়ি কোটি টাকা ক্ষতির আশঙ্কা দেখছেন তারা। আপাতত পেঁয়াজ বোঝাই লরি গুলি বাংলাদেশ রপ্তানি না করা হলে পিয়াজ রপ্তানিকারকদের আগামীতে আত্মহত্যা ছাড়া কোন উপায় থাকবেনা। এই বিষয়ে মহদীপুর এক্সপোর্ট অ্যাসোসিয়েশনের কার্যকরী সভাপতি ফজলুল হক জানান লকডাউন এমনিতেই বেশ কয়েকমাস সীমান্তে ব্যবসা-বাণিজ্য বন্ধ ছিল। এরইমধ্যে কেন্দ্রীয় সরকারের হঠকারী সিদ্ধান্তে সীমান্তে আটকে পড়েছে বিভিন্ন রাজ্য থেকে আসা পেঁয়াজ বোঝাই লরি গুলি। ইতিমধ্যে লরি বোঝায় পিয়াজ গুলিতে পচন ধরতে শুরু করেছে। কেন্দ্রীয় সরকারের কাছে এক্সপোর্ট অ্যাসোসিয়েশনের পক্ষ থেকে আবেদন জানানো হচ্ছে যাতে সীমান্তে আটকে পড়া লরি গুলিকে আপাতত রপ্তানি করার নির্দেশ দেওয়া হয়। না হলে আগামীতে পিয়াজের দাম আরো অগ্নিমূল্য হওয়ার আশঙ্কা প্রকাশ করেন তিনি। অন্যদিকে এ বিষয়ে মহদীপুর সিএনএফ এজেন্ট ওয়েলফেয়ার অ্যাসোসিয়েশনের সম্পাদক ভূপতি মন্ডল জানান, কেন্দ্রীয় সরকারের নির্দেশিকা জারি করার আগেই প্রায় দেড়শ গাড়ি মহদীপুর স্থল বন্দরে এসেছিল। বর্তমানে প্রায় 400 গাড়ি আটকে পড়েছে। এত গরমে পিয়াজের পচন শুরু হয়েছে। এই বন্দর দিয়ে প্রতিদিন 75 কোটি টাকার ব্যবসা হয়ে থাকে। তাই পেঁয়াজ রফতানি বন্ধ হয়ে যাওয়ায় প্রতিদিন এত বড় অঙ্কের টাকা ক্ষতির সম্মুখীন হচ্ছেন তারা।

NewsDesk - 2

aappublication@gmail.com

Newsbazar24 Reporter

Post your comments about this news