দেশ

প্রধানমন্ত্রীর ‘মন কি বাত অনুষ্ঠানে জল সমস্যা নিয়ে গভীর উদ্বেগ

প্রধানমন্ত্রীর ‘মন কি বাত অনুষ্ঠানে জল সমস্যা  নিয়ে গভীর উদ্বেগ

ডেস্ক, ৩০ জুনঃ প্রত্যাবর্তনের পরে আজ আবার মন কি বাত’- ভাষণ দিলে প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র  মোদিআবারও নতুনমন কি বাত'- এসে প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদি জানালেন তিনি  মানুষের উপরে বিশ্বাস রেখেছিলেন বলেই ফিরতে পেরেছেন প্রধানমন্ত্রীর এদিনের ভাষণে সবথেকে গুরুত্ব পেল  জল সংরক্ষণ তিনি জনতার কাছে আবেদন করেন, জল বাঁচানোর পথ খোঁজার 

সারা দেশ জুড়ে জলের অভাব ভাবাচ্ছে  আম আদমি সকলকেই। জলের নামজীবন', এই  সম্বোধন বদলে প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদি  আজ নয়া নামকরণ করেছেন জলের।  মোদি বলেন, জলের অন্য নাম এখনপরশ' বা পরশ পাথর  যা নতুন জীবন সৃষ্টি করে। সাম্প্রতিক বছরগুলোতে দেশের নানা অংশই জলসংকটের চূড়ান্ত অবস্থার মধ্য দিয়ে যাচ্ছে। এই মুহূর্তে সতর্ক না হলে পরিস্থিতি আরও মারাত্মক হতে পারে। জল সংরক্ষণের জন্য জনগণের কাছে তিনটি অনুরোধ করেছেন প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদি। 

প্রধানমন্ত্রী বলেন , “আমি জল সংরক্ষণ সম্পর্কিত সচেতনতা সৃষ্টির জন্য সকল প্রজন্মের প্রখ্যাত মানুষসহ সকল ভারতীয়কে আবেদন জানাচ্ছি। দ্বিতীয়ত, জল সংরক্ষণের ঐতিহ্যবাহী পদ্ধতি নিয়ে যা যা জানেন সেই জ্ঞান ভাগ করে নিন। তৃতীয়ত, যদি আপনি জানেন যে কোনও ব্যক্তি বা এনজিওরা জল নিয়ে কাজ করছে, তাদের কথা সকলকে জানান।

গত বেশ কয়েক সপ্তাহে, চেন্নাই কার্যত শুকিয়ে কাঠ এবং জলের অভাবে জীবন সেখানে স্থবির। শহরের অনেক শপিং মল এবং জনগণের ব্যবহৃত নানা স্থান বন্ধ করে দেওয়া হয়েছে। অফিসের জল ব্যবহার কমাতে সকলকেই বাড়িতে থেকে কাজ করার জন্য অনুরোধ করা হয়েছে। মধ্যপ্রদেশ পশ্চিমবাংলার কিছু অংশেও গুরুতর জলসংকট দেখা দিয়েছে। 

প্রধানমন্ত্রী মোদি বলেন, “জল ' জীবন বাঁচানোর শক্তি...প্রতি বছর হওয়া বৃষ্টিপাতের মাত্র % জলই সংরক্ষণ করা যেতে পারে। জল সংরক্ষণের গুরুত্ব বোঝার এবং এই পরিস্থিতির সমাধান করার সময় এসেছে এবার।মোদির কথায়, “জল সংরক্ষণের গুরুত্ব এবং গ্রামীণ ভারতে এই বিষয়ে সচেতনতা সৃষ্টির পদক্ষেপ গ্রহণের বিষয়ে কী কী করা যেতে পারে তা নিয়ে গ্রাম প্রধানদের কাছে একটি চিঠি লিখেছি আমি।মোদি জানান, গত কয়েক মাসে অনেকেই জল সম্পর্কিত সমস্যা নিয়ে তাঁর কাছে চিঠি লিখেছেন। তিনি বলেন, “জল সংরক্ষণ সম্পর্কে সচেতনতা আরও বাড়ছে দেখে আমি খুশি।আমাদের সকলের  লক্ষ্যমাত্রা একই হতে হবে- প্রতিটি জলবিন্দুকে বাঁচাতে হবে।

Kartik Pal

aappublication@gmail.com

english bazar Reporter

Post your comments about this news