সারা ভারত

জেনে নিন তেজস এক্সপ্রেসের যাত্রীদের কোন ধরনের জলের বোতল দেওয়া হবে ?

জেনে নিন তেজস এক্সপ্রেসের যাত্রীদের কোন ধরনের জলের বোতল দেওয়া হবে ?

জেনে নিন তেজস এক্সপ্রেসের যাত্রীদের কোন ধরনের জলের বোতল দেওয়া হবে ?

News bazar24: পরিবেশের সুরক্ষার কথা মাথায় রেখে এবার অভিনব পদক্ষেপ নিল ভারতীয় রেল। এখন থেকে দেশের প্রথম বেসরকারি সেমি-হাইস্পিড ট্রেন লখনউ-দিল্লি তেজস এক্সপ্রেসের যাত্রীদের বায়োডিগ্রেডেবল প্যাকেজড পানীয় জলের বোতল দেওয়া হচ্ছে। লখনউ রিজিয়নের আইআরসিটিসি-এর চিফ রিজিওনাল ম্যানেজার (সিআরএম), অশ্বিনী শ্রীবাস্তব বলেছেন: "তেজস এক্সপ্রেসে (Tejas Express) প্রতিদিন কমপক্ষে ১,৫০০ জলের বোতল পরিবেশন করা হচ্ছে। বোতলগুলি ব্যবহারের পর সেগুলি কত তাড়াতাড়ি নষ্ট হয় তার ফলাফল পর্যবেক্ষণ করতে এবং গোটা বিষয়টি খতিয়ে দেখতে কয়েক মাস ধরে এটির পরীক্ষামূলক ব্যবহার করা হবে। পরে বোতলগুলির বিষয়ে পাকাপাকিভাবে সিদ্ধান্ত নেওয়া হবে। ""

বায়োডিগ্রেডেবল এই বোতলগুলি মুম্বইয়ের বোতলিং প্লান্টে পরীক্ষামূলকভাবে তৈরি করছে ভারতীয় রেলের ক্যাটারিং অ্যান্ড ট্যুরিজম কর্পোরেশন (আইআরসিটিসি) ।আইআরসিটিসি এই প্রথমবার এই ধরণের বোতল ব্যবহারের মাধ্যমে পরিবেশ বান্ধব ব্যবস্থা গ্রহণ করার চেষ্টা চালাচ্ছে।

সাধারণত ব্যবহৃত প্লাস্টিকের বোতলগুলির তুলনায় এই ধরণের প্রতিটি বোতল উৎপাদন করতে সাধারণত ১৫ পয়সা অতিরিক্ত ব্যয় হয়। বর্তমানে প্যাকেজযুক্ত পানীয় জল পলিথিলিন টেরেফথলেট (পিইটি) প্লাস্টিকের বোতলে প্যাক করা হয়, যা অ-বায়োডিগ্রেডেবল।আইআরসিটিসি অনুসারে ভারতে প্রায় ১০ লক্ষ মেট্রিক টন পিইটি বোতল ব্যবহার করা হয় প্যাকেজিং ওয়াটার, সফ্ট ড্রিংকস, ফলের রস ইত্যাদি খাওয়ার ক্ষেত্রে।

আইআরসিটিসি বায়োডিগ্রেডেবল পলিমার যুক্ত করে একটি পিইটি বোতলকে বায়োডেগ্রেটেবল করতে একটি পরীক্ষা চালিয়েছিল। বায়োডিগ্রেডেবল পলিমারের শারীরিক এবং রাসায়নিক বৈশিষ্ট্যগুলি এয়ারোবিক বা অ্যানেরোবিক প্রক্রিয়া বা মাইক্রো-অর্গানিজমের সংস্পর্শে এলে সেগুলিকে পুরোপুরি নষ্ট করে দেয়।এদিকে দেশে প্লাস্টিকের ব্যবহার বন্ধ করার পদক্ষেপ হিসাবে উত্তরপ্রদেশ রাজ্য সড়ক পরিবহন কর্পোরেশন (ইউপিএসআরটিসি) শীতাতপ নিয়ন্ত্রিত বাসের যাত্রীদের জলের বোতল সরবরাহ বন্ধ করে দিয়েছে। এমনকি যাত্রীদের নিজস্ব প্লাস্টিকের জলের বোতলও বহন করতে দেওয়া হবে না। কেন্দ্র একক ব্যবহারের প্লাস্টিকের নিষেধাজ্ঞার ঘোষণা দেওয়ার পরে ইউপিএসআরটিসি প্রশাসন এই সিদ্ধান্ত নিয়েছে।

 

Shankar Chakraborty

aappublication@gmail.com

Editor of AAP publicaltions

Post your comments about this news