মালদা

অসহায় দুই ব্যাক্তির বাগান সহ বিস্তীর্ণ জমি দখল করার অভিযোগ উঠল আবু নাসের খান চৌধুরীর বিরুদ্ধে

অসহায় দুই ব্যাক্তির বাগান সহ বিস্তীর্ণ জমি দখল করার অভিযোগ উঠল আবু নাসের খান চৌধুরীর বিরুদ্ধে

অসহায় দুই ব্যাক্তির বাগান সহ বিস্তীর্ণ জমি দখল করার অভিযোগ উঠল আবু নাসের খান চৌধুরীর বিরুদ্ধে।

ডেস্ক ঃ অসহায় পক্ষাঘাতে পঙ্গু ও হৃদরোগে আক্রান্ত দুই ব্যাক্তির বাগান সহ বিস্তীর্ণ জমি দখল এবং তাদের মারধর করার অভিযোগ উঠল তৃণমূলের প্রভাবশালী  নেতা তথা গণিখান চৌধুরীর ভাই আবু নাসের খান চৌধুরীর বিরুদ্ধে। শুধু দখলই নয়,দখল করা বাগানের বড় বড় সব গাছ কেটে বিক্রিও করে দিয়েছেন তিনি। নাসের খান  ও তাঁর স্ত্রী তন্দ্রা খান চৌধুরীর বিরুদ্ধে থানায় অভিযোগ করা হয়েছে। এই ঘটনায় তীব্র চাঞ্চল্য ছড়িয়েছে মালদা জেলা জুড়ে।

মালদায় কোতোয়ালির গণিখান চৌধুরীর বাসভবনের সামনেই প্রায় ২৫ কাঠা জমি ও বাগান জোর করে দখল করে নেওয়ার অভিযোগ গনিখান চৌধুরীর ভাই আবু নাসের খান চৌধুরীর বিরুদ্ধে। সুজাপুরের প্রাক্তন বিধায়ক তথা জেলার প্রভাবশালী এই নেতা ও তাঁর স্ত্রী তন্দ্রা খান চৌধুরীর বিরুদ্ধে ইংরেজবাজার থানায় অভিযোগও দায়ের হয়েছে।  ২৫ কাঠা জমির মালিক কোতোয়ালিরই বাসিন্দা মঞ্জুর সেখ এবং তাঁর তিন ভাই।  মঞ্জুর সেখ নিজে হৃদ রোগে আক্রান্ত। গুরুতর অসুস্থ তিনি।অন্য এক ভাই আবার পক্ষাঘাতে পঙ্গু। তাদের প্রথমে জমি বিক্রি করানোর জন্যে চাপ দিতে থাকেন নাসের খান চৌধুরী ও তন্দ্রা। প্রথমে গড় রাজি থাকলেও পরে দারিদ্র্যতার কারণে রাজি হয়ে যান মঞ্জুর সেখ। কিন্তু মোটা টাকার কথা শুনিয়েও কোনো টাকা না দিয়েই হঠাৎ করেই লোকজন নিয়ে এসে জমি বাগান দখল করেন নাসের খান।দ্রুত কেটে নেওয়া হয় বড় বড় সব আম গাছ। বিক্রিও করে দেওয়া হয়। জমির চারদিকে উঠতে থাকে পাকা প্রাচীর। এই পরিস্থিতিতে অসহায় মঞ্জুর সেখ বিভিন্ন দরজায় ঘুরেও কোনো লাভ হয় নি।গনিখান চৌধুরীর ভাই,তৃণমূলের জেলা সভানেত্রী মৌসম নূরের মামা কোতোয়ালির নাসের খানের বিরুদ্ধে কথা বলার মতো দুঃসাহস কেউ দেখায় নি।এরপর  বাধ্য হয়ে অসুস্থ শরীরে স্ত্রী,পরিবারকে সঙ্গে নিয়ে মঞ্জুর সেখ নিজেই নিজের বেদখল হওয়া জমিতে ঢুকতে গেলে বাধা দেন নাসের খান। শুনুন কি বলছেন নাসের খান ।

NewsDesk - 2

aappublication@gmail.com

Newsbazar24 Reporter

Post your comments about this news