কার্ত্তিক চন্দ্র পাল, ১৪ ই জানুয়ারীঃ  কালিতলা ক্লাবের পরিচালনায়  ১৭ তম এস আর এম বি  কাপ নক-আউট ক্রিকেট টুনামেন্টের চুড়ান্ত খেলায় জয়ী হল মালদা অনীক  সংঘ।  আজ রবিবার ১৪ই জানুয়ারী  বৃন্দাবনী ময়দানে এই খেলা শুরু হয় সকাল ১০টায়।  আকাশ  কুয়াসাছন্ন থাকার জন্য খেলাটি ২০ ওভারে করার সিদ্বান্ত নেওয়া হয়।  

বহরমপুর  সবুজ সংঘ  টসে জিতে ব্যাটিং করার সিদ্বান্ত নেয়। শুরুতেই ব্যাটিং বিপর্যয়ের সন্মুখীন হয় তারা অনীক সংঘ এর বোলিং সামনে তাসের ঘরের মত ভেঙে পড়ে। বহরমপুর  সবুজ সংঘ   ১৭.৩ ওভারে মাত্র ৯৭ রানে সকলে আউট হয়ে যান।

 জবাবে ব্যাট করতে নেমে মালদা  অনীক সংঘ ৮.৫ ওভারে জয়ের জন্য প্রয়োজনীয় রান  ১ উইকেটে তুলে নেয়।  আজকের খেলায় ম্যান অফ দি ম্যাচ নির্বাচিত হন মালদা  অনীক সংঘ এর  অলরাউন্ডার অরূন চাম্পারা।  তিনি ব্যাটিংএ ১৭ বলে ৩৮ রান করেন পাশাপশি বোলিং এ ৩ ওভার বল করে ১৮ রান দিয়ে ৪ উইকেট সংগ্রহ করে।  ম্যান অফ দি সিরিজ নির্বাচিত হন অনীক সংঘের অরূন চাম্পারা।

আজকের এই ফাইনাল খেলাকে কেন্দ্র করে বৃন্দাবনী ময়দানে ব্যাপক জনসমাগম হয়েছিল। কিন্তু খেলা তাদেরকে সন্তুষ্ট করতে পারেনি। আজকের এই খেলায় উপস্থিত ছিলেন বিশিস্ট ক্রীড়া প্রশাসক  তথা সিএ বি-র প্রাক্তন সচিব বিশ্বরুপ সরকার , আই এফ এ-র সহ সভাপতি দেবাশিষ ভট্টাচার্য এবং মেদিনীপুর জেলা ক্রীড়া সংস্থার সচিব সহ অন্যান্যরা। খেলা শেষে বিজয়ী দলের হাতে পুরুস্কার তুলে দেন সিএ বি-র প্রাক্তন সচিব বিশ্বরুপ সরকার , আই এফ এ-র সহ সভাপতি দেবাশিষ ভট্টাচার্য ।    

Published in Cricket

ডেস্ক, ১৪ই জানুয়ারীঃ আজ পৌষ সংক্রান্তি। সারা দেশের ন্যায় মালদাতেও পালিত হল মকর সংক্রান্তি আর সেই উপলক্ষে গঙ্গা স্নান করতে আসা মানুষের ভিড়  মালদার সদুল্লাপুর ঘাটে। আট থেকে আশি মহিলা পুরুষ সকলেই ভোররাত থেকে এসে ঘাটে জমায়েত হয়েছেন স্নান করতে। পৌষ সংক্রান্তি উপলক্ষে এখানে একটি মেলাও বসে। হাজার হাজার আজ এই নদীতে স্নান করতে আসেন। 
      
  এই মেলা বহু কাল থেকে হয়ে আসছে। কথিত আছে ভগীরথ যখন মা গঙ্গা আনয়ন করেছিলেন সেই সময় থেকে প্রচলিত এই মেলা চলে আসছে। এবার ঠাণ্ডার কারনে মেলায় পুন্যার্থী কম হয়েছিল বলে জানা গেছে।  বেলা বাড়ার সাথে সাথে মহিলা ও পুরুষের ভীড় বাড়তে থাকে। মেলায় কোন অপ্রীতিকর ঘটনা না ঘটে তার জন্য মেলায় প্রচুর স্বেচ্ছাসেবক  ও পুলিশ মোতায়েন করা হয়েছিল।      

 পাশাপাশি বিশ্বশান্তির উদ্দেশ্যে সারা দেশের সাথে গঙ্গা সাগরের ধাচে মালদার বৈষ্ণবনগরের খেজুরিয়া ঘাটেও পালিত হল পৌষ সংক্রান্তি উৎসব। প্রতি বছরের ন্যায় এই বছরেও মালদার কালিয়াচক ৩ নম্বর ব্লকের বৈষ্ণবনগরে  মকর সংক্রান্তির পূর্ণ তিথি উপলক্ষে গঙ্গা স্নানের আয়োজন করা হয়  খেজুরিয়া নারায়ণ ঘাটে। গঙ্গা স্নান উপলক্ষে বসে বিশাল মেলা। প্রায় দেড় লক্ষ মানুষের সমাগম হয় এই স্থানে গঙ্গা স্নান ও মেলা উপলক্ষে। এদিন কাক ভোর থেকে পুন্যার্থীদের ভীর শুরু হয় ঘাটে। ঠাণ্ডাকে উপেক্ষা করে আট থেকে আশি সকলেই  নদীর ঘাটে স্নান করতে আসেন। এই মেলাতে মালদা জেলা তৃণমূল যুব কংগ্রেস ও  কালিয়াচক তৃণমূল যুব কংগ্রেস উদ্যোগে পুন্যার্থীদের খিচুরী প্রসাদ বিলি ও শীতবস্ত্র বিলির ব্যাবস্থা করা হয়। এর পাশাপাশি মেলায় আগত সাধু সন্ন্যাসীদের সম্বর্ধনা দেওয়ার ব্যবস্থা করা হয় তৃণমূল যুব কংগ্রেসের পক্ষ থেকে। উপস্থিত ছিলেন জেলার তৃণমূল যুব নেতা বিশ্বজিৎ মন্ডল। বাংলা ঝাড়খন্ড বিহার সহ মালদা ও পার্শ্ববর্তী জেলা  এখানে আসেন  প্রায় দেড় লক্ষ পুন্যার্থী। জানা গিয়েছে, প্রায় তিনশো বছরের পুরনো এই মেলা।  মেলা উপলক্ষে লোক সঙ্গীত, বাউল সঙ্গীত, বিশ্ব শান্তি যজ্ঞ, এবং সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠানের আয়োজন করা হয় মেলা প্রাঙ্গনে।

 

 

 

Published in Malda-Dinajpur-2

ডেস্ক, ১৪ই জানুয়ারীঃ আজ পৌষ সংক্রান্তি। সারা দেশের ন্যায় মালদাতেও পালিত হল মকর সংক্রান্তি আর সেই উপলক্ষে গঙ্গা স্নান করতে আসা মানুষের ভিড়  মালদার সদুল্লাপুর ঘাটে। আট থেকে আশি মহিলা পুরুষ সকলেই ভোররাত থেকে এসে ঘাটে জমায়েত হয়েছেন স্নান করতে। পৌষ সংক্রান্তি উপলক্ষে এখানে একটি মেলাও বসে। হাজার হাজার আজ এই নদীতে স্নান করতে আসেন। 
      
  এই মেলা বহু কাল থেকে হয়ে আসছে। কথিত আছে ভগীরথ যখন মা গঙ্গা আনয়ন করেছিলেন সেই সময় থেকে প্রচলিত এই মেলা চলে আসছে। এবার ঠাণ্ডার কারনে মেলায় পুন্যার্থী কম হয়েছিল বলে জানা গেছে।  বেলা বাড়ার সাথে সাথে মহিলা ও পুরুষের ভীড় বাড়তে থাকে। মেলায় কোন অপ্রীতিকর ঘটনা না ঘটে তার জন্য মেলায় প্রচুর স্বেচ্ছাসেবক  ও পুলিশ মোতায়েন করা হয়েছিল।      

 পাশাপাশি বিশ্বশান্তির উদ্দেশ্যে সারা দেশের সাথে গঙ্গা সাগরের ধাচে মালদার বৈষ্ণবনগরের খেজুরিয়া ঘাটেও পালিত হল পৌষ সংক্রান্তি উৎসব। প্রতি বছরের ন্যায় এই বছরেও মালদার কালিয়াচক ৩ নম্বর ব্লকের বৈষ্ণবনগরে  মকর সংক্রান্তির পূর্ণ তিথি উপলক্ষে গঙ্গা স্নানের আয়োজন করা হয়  খেজুরিয়া নারায়ণ ঘাটে। গঙ্গা স্নান উপলক্ষে বসে বিশাল মেলা। প্রায় দেড় লক্ষ মানুষের সমাগম হয় এই স্থানে গঙ্গা স্নান ও মেলা উপলক্ষে। এদিন কাক ভোর থেকে পুন্যার্থীদের ভীর শুরু হয় ঘাটে। ঠাণ্ডাকে উপেক্ষা করে আট থেকে আশি সকলেই  নদীর ঘাটে স্নান করতে আসেন। এই মেলাতে মালদা জেলা তৃণমূল যুব কংগ্রেস ও  কালিয়াচক তৃণমূল যুব কংগ্রেস উদ্যোগে পুন্যার্থীদের খিচুরী প্রসাদ বিলি ও শীতবস্ত্র বিলির ব্যাবস্থা করা হয়। এর পাশাপাশি মেলায় আগত সাধু সন্ন্যাসীদের সম্বর্ধনা দেওয়ার ব্যবস্থা করা হয় তৃণমূল যুব কংগ্রেসের পক্ষ থেকে। উপস্থিত ছিলেন জেলার তৃণমূল যুব নেতা বিশ্বজিৎ মন্ডল। বাংলা ঝাড়খন্ড বিহার সহ মালদা ও পার্শ্ববর্তী জেলা  এখানে আসেন  প্রায় দেড় লক্ষ পুন্যার্থী। জানা গিয়েছে, প্রায় তিনশো বছরের পুরনো এই মেলা।  মেলা উপলক্ষে লোক সঙ্গীত, বাউল সঙ্গীত, বিশ্ব শান্তি যজ্ঞ, এবং সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠানের আয়োজন করা হয় মেলা প্রাঙ্গনে।

Published in Malda-Dinajpur-2

ডেস্ক, ১৪ই জানুয়ারীঃ ভারত-বাংলাদেশের সোনামসজিদ সীমান্তে থেকে কিছু দূরে বাংলাদেশে গোপাল লালা নামে এক ভারতীয় নাগরিককে গ্রেফতার করলো ৫৯’বিজিবি ব্যাটালিয়ন। তার কাছ থেকে পাওয়া গেছে প্রাচীন  স্বর্ণ মুদ্রা সহ রুপা ও তামার তৈরী কয়েন । ধৃতের বাড়ি মালদার কালিয়াচকের গোলাপগঞ্জে। গত পঞ্চায়েত নির্বাচনে জেলাপরিষদের তৃনমুলের প্রার্থী ছিলো সে বলে জানা যায়।         

জানা গিয়েছে, গত বৃহস্পতিবার চাঁপাইনবাবগঞ্জের সোনামসজিদ সীমান্তে  বিওপির জাওয়ানেরা  কর্মরত ছিলেন।  সেই সময় সীমান্ত থেকে কিছুটা দূরে বাংলাদেশের ভেতরে জিরো পয়েন্ট এলাকা থেকে ভারতীয় নাগরিক কালিয়াচক থানার গোপালগঞ্জ গ্রামের বাসিন্দা গোপাল লালা  কে গ্রেফতার করে।  ৫৯’বিজিবি ব্যাটালিয়ন অধিনায়ক লে.কর্ণেল রাশেদ আলী শুক্রবার সন্ধ্যায় ঘটনাটি জানিয়েছেন। তিনি জানান, গোপাল লালার কাছ থেকে অবৈধভাবে নিয়ে যাওয়া ৩২ গ্রাম ওজনের ৪টি সোনার কয়েন, ৯১৮ গ্রাম ওজনের ১১২টি রুপার কয়েন, ২টি করে নিকেল ও তামার কয়েন, প্রায় চার হাজার ভারতীয় রুপি, প্রায় দেড় হাজার  বাংলাদেশি টাকা ও সীমসহ ২টি মোবাইল ফোন উদ্ধার হয়েছে। তার কাছ থেকে উদ্ধার সামগ্রীর বাজার মূল্য ২ লক্ষ ১৫ হাজার টাকা। ধৃতকে শিবগঞ্জ থানায় দেওয়া হয়েছে বলেও জানান লে.কর্ণেল রাশেদ আলী। 

Published in Malda-Dinajpur-2

ডেস্ক, ১৪ জানুয়ারি :  প্রদেশ কংগ্রেস সভাপতি অধীর চৌধুরি তথারেলের প্রাক্তন রাষ্ট্রমন্ত্রী বহরমপুরে অভিযোগ করেন  রাজ্য সরকারের অসহযোগিতার জন্যই বহরমপুরে চুঁয়াপুরে রেলের ওভারব্রিজের কাজ থমকে রয়েছে।  ব্রিজ পরিদর্শনে এসে একথা বলেন তিনি। এছাড়া যে ঠিকাদার সংস্থাকে কাজের বরাত দেওয়া হয়েছে তাদের কাজ করার কোনও অভিজ্ঞতা আছে কি না তা নিয়েও প্রশ্ন তোলেন। বরং রাজনৈতিক প্রভাবেই তারা কাজ পেয়েছে বলে দাবি করেন তিনি। 

অধীরবাবু রেলের রাষ্ট্রমন্ত্রী থাকাকালীন বহরমপুরের চুঁয়াপুর রেলওয়ে ওভারব্রিজ তৈরির জন্য বাজেটে ৩৯ কোটি টাকা বরাদ্দ করেছিলেন । টেন্ডার ডাকার পরই বেআইনি দখলদারদের উচ্ছেদ করে জায়গা খালি করে দেওয়া হয়েছিল। কাজ শুরু হওয়ার পর রাজ্য সরকার অ্যাপ্রোচ রোডের অনুমোদন না দেওয়ায় মাঝপথে বন্ধ হয়ে যায়। কৃতিত্ব কে নেবে তা নিয়েই টানাপোড়েনে বন্ধ হয় কাজ। ফের কাজ শুরু হয়েই মাঝপথে থমকে পড়েছে।  বহরমপুর শহরের মানুষকে  গুরুত্বপূর্ণ রাস্তা বন্ধ থাকায় হয়রান হতে হচ্ছে ।   শহরের বাসিন্দাদের  অভিযোগ পেয়ে সেখানে যান প্রাক্তন কেন্দ্রীয় মন্ত্রী। রেলের কর্তাদের ও ঠিকাদার সংস্থার সঙ্গে কথা বলে জানতে পারেন জমি অধিগ্রহণ না হওয়ায় কাজ থমকে রয়েছে। কিন্তু, বেআইনি দখলদারদের অনেক আগেই উচ্ছেদ করা হয়েছে বলে দাবি করেছেন তিনি। মুখ্যমন্ত্রীর নাম না করে অধীরবাবু বলেন, “উনি নাকি দেশের কোনার কোনার খবর রাখেন। অথচ বহরমপুরের মানুষ এতদিন অসুবিধা ভোগ করছেন সে খবরই নেই ওনার কাছে।”

ডেস্ক, ১৪ জানুয়ারি ঃ আজ সকালে  গাজোলে ঘন কুয়াশায় দুর্ঘটনার মুখে পড়ে ছোটো গাড়ি।  দুর্ঘটনায় আহত হয়েছেন চারজন প্রাক্তন সেনাকর্মী। আহতরা হলেন সব্যসাচী বিশ্বাস(৬৫), বলরাম রায়(৬৭), রজতকুমার মিত্র(৭০) ও বিমলকুমার ঘোষ (৬৮)। তাঁদের সবার বাড়ি মালদা শহরের সর্বমঙ্গলা পল্লি এলাকায়। প্রাক্তন সেনা কর্মী সংগঠনের সম্মেলনে যোগ দিতে তাঁরা আজ সকালে রায়গঞ্জের উদ্দেশ্যে রওয়ানা দেন। নিজেদেরই গাড়িতে তাঁরা রায়গঞ্জ যাচ্ছিলেন। গাজোলে ঢোকার মুখে ঘন কুয়াশায় দেখতে না পেয়ে নিয়ন্ত্রণ হারিয়ে গাড়িটি রাস্তার ধারে একটি গাছে ধাক্কা মারে। স্থানীয় বাসিন্দারা আহত চারজনকে উদ্ধার করে মালদা মেডিকেলে পাঠান। তবে তাঁদের অবস্থা এখন স্থিতিশীল বলে মেডিকেল সূত্রে জানা গেছে ৷

Published in Malda-Dinajpur-2

ডেস্ক, ১৪ জানুয়ারি : বাইক দুর্ঘটনায় হেমলেট বিহীন দুই বাইক আরোহীর  মৃত্যু হল । ঘটনাটি ঘটেছে গত কাল রাতে  পুরাতন মালদার নারায়ণপুর এলাকায়।  আরও একজন গুরুতর আহত অবস্থায়  মালদা মেডিকেল কলেজ ও হাসপাতালে চিকিৎসাধীন। মৃতদের নাম সুব্রত দাস  ও নীলাদ্রি রায় এরা দুইজন মালদা কলেজের সেকেন্ড ইয়ারের ছাত্র। ঘটনার তদন্ত শুরু করেছে মালদা থানার পুলিশ। মৃতদেহ দুটি    ময়নাতদন্তের জন্য পাঠানো হয়েছে। 
পুলিশ সূত্রে জানা গেছে, গতকাল রাতে  পিকনিক সেরে মোটরবাইককে করে বাড়ি ফিরছিল তিন বন্ধু। তাদের কারোর মাথাতেই হেলমেট ছিল না উপরন্তু  তিনজনই মদ্যপ অবস্থায় ছিল বলে জানা যায়। ৩৪ নম্বর জাতীয় সড়কে নিয়ন্ত্রণ হারিয়ে নারায়ণপুরের কাছে  রাস্তার ডিভাইডারে ধাক্কা মারে তাদের বাইক। ঘটনাস্থানেই মৃত্যু হয় সুব্রত দাসের। বাকি দু’জনকে আশঙ্কাজনক অবস্থায় স্থানীয়রা মালদা মেডিকেল কলেজ ও হাসপাতালে ভর্তি করা হয়। হাসপাতালে  মৃত্যু হয় নীলাদ্রি রায়ের। আর এক জন  আশঙ্কাজনক অবস্থায় মালদা মেডিকেলে ভর্তি রয়েছে।

মৃত দুইজনের বাড়ি  মালদা শহরে। গতকাল দুপুরে পিকনিক যাওয়ার নাম করে তারা বাড়ি থেকে বের হয়। রাতে তাদের পরিবারের লোকজন দুর্ঘটনার খবর পান।

Published in Malda-Dinajpur-2

ফটো গ্যালারী

Market Data

সম্পাদকের কথা

ফ্যান ছবিতে দেখা যাবে ১৭ বছরের শাহরুখকে

ফ্যান ছবিতে দেখ...

ডেস্ক: ছবির নাম যখন ফ্যান, আর অভিনয়ে যখন...

ধর্মীয় মৌলবাদীদের হামলায় খুন লেখক অভিজিৎ রায়

ধর্মীয় মৌলবাদীদ...

ঢাকা: একুশের বইমেলা থেকে ফেরার পথে ঢাকা ...

উদাসী হাওয়ায় গা ভাসিয়ে বলতেই পারেন, ""হোলি হ্যায়''!!!

উদাসী হাওয়ায় গা...

শান্তিনিকেতনে বসন্ত উত্সবের সূচনা হয় প্র...

বিবাহ বন্ধনে আবব্ধ হতে চলেছেন খ্যাতনামা অফ-স্পিনার হরভজন সিংহ

বিবাহ বন্ধনে আব...

কার্ত্তিক চন্দ্র পাল : ভারতের খ্যাতনামা ...

আপগ্রেড করুন

« January 2018 »
Mon Tue Wed Thu Fri Sat Sun
1 2 3 4 5 6 7
8 9 10 11 12 13 14
15 16 17 18 19 20 21
22 23 24 25 26 27 28
29 30 31        

MC News

Contact Us

Email: This email address is being protected from spambots. You need JavaScript enabled to view it.

Face Book: /newsbazar24 

Helpline No- 09434219594/9126173604