You are here: Homeবিদেশসারা বিশ্বItems filtered by date: Friday, 12 January 2018

ডেস্ক , ১২ জানুয়ারি : রাজ্য দপ্তরে হামলার অভিযোগে ধর্মতলায় গান্ধি মূর্তির পাদদেশে মৌন অবস্থানে সামিল হলেন বিজেপি-র কেন্দ্রীয় নেতৃত্ব অর্জুন মেঘওয়াল সহ রাজ্য নেতা ও  কর্মীরা। বিজেপি-র রাজ্য সভাপতি দিলীপ ঘোষের নেতৃত্বে এই মৌন অবস্থান শুরু হয়েছে প্ল্যাকার্ড হাতে নিয়ে জাতে লেখা রয়‍্যেছ “ছিঃ মুখ্যমন্ত্রী, ছিঃ” । 
আজ সংকল্প অবস্থান অভিযানকে কেন্দ্র করে  বিজেপি-র বাইক মিছিল ছিল। সেই অনুযায়ী গতরাতে  জোড়াবাগান এলাকার  রাত কাটায় কর্মীরা। প্রথমে সেখানে তাদের উপর তৃণমূল কর্মীরা হামলা চালায় বলে অভিযোগ। আহত হন দু’জন যুব মোর্চা কর্মী।

এরপর বিজেপি-র রাজ্য সভাপতি দিলীপ ঘোষ সকাল সাড়ে সাতটার সময় সেন্ট্রাল অ্যাভিনিউ থেকে বাইক মিছিলের সূচনা করেন । মিছিল শ্যামবাজারের উদ্দেশে যাত্রা করে। মিছিল গিরিশ পার্কের কাছে  গেলে সেই মিছিলে তৃণমূল হামলা করে বলে অভিযোগ। আহত হন যুব মোর্চার রাজ্য সভাপতি দেবজিৎ সরকার। তাঁকে মাটিতে ফেলে মারধর করা হয়। এছাড়াও আহত হয় ছয়জন।

এই খবর পাওয়ার পর সেন্ট্রাল অভিনিউতে ধরনায় বসে যুব মোর্চার কর্মীরা। সেই সময় অন্যদিক থেকে তৃণমূল কর্মীরা গিয়ে রাজ্য দপ্তরে ইটবৃষ্টি করে বলে অভিযোগ। পালটা আক্রমণ করে যুব মোর্চার কর্মীরাও। দু’পক্ষের সংঘর্ষে উত্তপ্ত হয়ে ওঠে সেন্ট্রাল অ্যাভিনিউ এলাকা। বন্ধ হয়ে যায় রাস্তা। দিলীপ ঘোষ রাজ্য দপ্তর থেকে বের হলে পরিস্থিতি আরও ঘোরালো হয়ে ওঠে।

Published in Kolkata

কার্ত্তিক চন্দ্র পাল, ১২ই জানুয়ারীঃ  কালিতলা ক্লাবের পরিচালনায়  এস আর এম বি  কাপ নক-আউট ক্রিকেট টুনামেন্টের চুড়ান্ত খেলায় মুখোমুখি হবে বহরমপুর  সবুজ সংঘে ও মালদা অনীক সংঘ। খেলাটি হবে আগামী রবিবার ১৪ই জানুয়ারী সাকাল ১০টায়।  

 আজ টুনামেন্টের দ্বিতীয় সেমিফাইনালে প্রতিদ্বন্দ্বিতা করে মালদা অনীক সংঘ ও শান্তি ভারতী পরিষদ। টসে জিতে শান্তি ভারতী ফিল্ডিং করার সিদ্বান্ত নেয়। মালদা অনীক সংঘ  নির্ধারিত ২৫ ওভারে  ৬ উইকেটে ১৯৩ রান করে । সবচেয়ে বেশি রান করেন মালদা অনীক সংঘ এর রাহুল দালাল ৪০ বলে ৪৬ রান। জবাবে ব্যাট করতে নেমে শান্তি ভারতী পরিষদ, মালদা   ১৮.৪ ওভারে ১০৪ রানে সকলে আউট হয়ে যান। মালদা অনীক সংঘ ৮৯রানে জয়লাভ করে।

গতকাল প্রথম সেমিফাইনালে বহরমপুর  সবুজ সংঘ ইস্ট সেন্ট্রাল রেলওয়ে,সমস্তিপুর কে ৮৭ রালে পরাজিত করে। ইস্ট সেন্ট্রাল রেলওয়ে টসে জিতে বহরমপুর  সবুজ সংঘকে ব্যাট করতে পাঠায়। বহরমপুর  সবুজ সংঘ  ২৫ ওভারে ৮উইকেটে ২০৪ রান করে। জবাবে ইস্ট সেন্ট্রাল রেলওয়ে সমস্তিপুর  ১৯.২ ওভারে ১০ উইকেটে ১১৭ রান করেন।    

Published in Cricket

ডেস্ক, ১২ জানুয়ারী : গাজোলের আহোড়া শ্রীমতি নদীর ধারে গঙ্গা পুজা ,স্নান মেলা ও বাউলগানের প্রস্তুতি চলছে ব্যাপক উৎসাহের মধ্য দিয়ে ।প্রতি বছরের ন্যায় এবারো গঙ্গা পুজা ,মেলা ও বাউলগানে মাতবেন এলাকা বাসী সহ পশ্চিমবঙ্গের বিভিন্ন এলাকায় থেকে আসা ভক্তরা ।৫দিন ব্যাপী মেলা জমে উঠে ।এবার বন্যার কারনেও এদের অনুষ্ঠানের কোথাও তুটি হবে না তবে কমিটির এবার খরচ চালাতে হিমসীম খেতে হবে কারন বন্যার কারনে তেমন আর্থিক সাহায্য মিলবে না তবু তারা ভক্তদের আর্শিবাদ মাথায় নিয়ে এ অনুষ্ঠানের প্রস্তুতি করছেন ।গাজোলের আহোড়া পাচকালী সকলের পরিচিত ।এখানে পাচটি পাথর মাটি ভেদ করে উঠে বলে কথিত আছে ।এখানে যে যা মানত করেন মা তাদের মনের আশা পুরন করে থাকেন কবে কত দিন পুর্বে এ পাথর গুলো উঠেছিল কেউ বলতে পারছেন না ।সকলের অনুমান প্রায় ৫০০ বছর পুর্বে এ পাথর গুলো পুরনো ।পুর্বে এখানে পুজা হত কিছু দিন বন্ধ থাকার পর এলাকা বাসী মিলে আবার এ মায়ের পুজা শুরু করেন গঙ্গা স্নান ,মেলা ও বাউল গান দিয়ে ।এবার শনিবার রাতে গঙ্গাপুজা হবে তারপর থেকে শ্রীমতি নদীতে গঙ্গা স্নান শুরু হবে মালদা ,উত্তরদিনাজপুর ,দক্ষিনদিনাজপুর থেকে প্রচুর ভক্তরা এখানে স্নান করতে আসেন এছাড়াও পশ্চিমবঙ্গের বিভিন্ন জেলায় থেকেও ভক্তরা আসেন স্নান করতে ও মেলা দেখার জন্য রবিবার ও সোমবার ২দিন স্নান হয় ।স্নান শেষে ভক্তদের জন্য খিচরী প্রসাদের ব্যবস্থা থাকে ।এ অনুষ্ঠান উপলক্ষ্যে ৫দিন ব্যাপী বাউলগান ও মেলা বসে ।কমিটির সভাপতি রমনী রায় সহ পরীক্ষিত (পরি) রায় ,শিবাজী ভক্ত,গান্ধি সরকার ,পরেশ মন্ডল ,পরিক্ষিত দাস ,দয়াল সিংহ ,হারো সিংহ রা বলেন গাজোলের আহোড়া পাচ কালী সকলের পরিচি এখানে পশ্চিমবঙ্গের বিভিন্ন এলাকা থেকে ভক্তরা মানত দিতে আসেন ।এখানে পাচটি পাথর রয়েছে কবে এ পাথর গুলো মাটি ভেদ করে উঠেছে কেউ বলতে পারছে না ।আমাদের বাবা ঠাকুর দাদারা এ পাথরের কথা শুনে আর্সেন আমরা শুনে যাচ্ছি তবে সকলের ধারনা ৫০০ বছরের পুরনো পুজা হবে ।পুর্বে জেলেদের কথা শুনা যায়  তারা পুজা করত তারপর বন্ধ হয়ে যায় ।এলাকা বাসী মিলে প্রায় ১৪ বছর ধরে এ অনুষ্ঠান চলছে এবার বন্যার জন্য এ অনুষ্ঠান চালাতে কষ্ট হবে তবু এলাকা বাসীদের সহযোগিতা নিয়ে অনুষ্ঠান করা হবে ।গঙ্গা স্নানের দিন হাজার হাজার ভক্তদের সমাগম হয় সকলের জন্য খিচরী প্রসাদ বিতরন করা হয় ।৫দিন ব্যাপী বাউল গানেক প্রচুর ভক্তদের সমাগম হয় এবারো প্রচুর ভক্তদের সমাগম হবে এলাকা বাসী ব্যাপক ভাবে সহযোগিতা করে থাকেন এ অনুষ্ঠানের জন্য ।এখানে প্রচুর দেবদেবী মুর্তি থাকে সকল ভক্তরা পুজা দিয়ে থাকেন ।


Published in Malda-Dinajpur-2

ডেস্ক, ১২ই জানুয়ারীঃ শুক্রবার গোটা দেশ জুড়ে পালন করা হল যুগপুরুষ স্বামী বিবেকানন্দের ১৫৬ তম জন্মদিবস। মহাসাড়ম্বরে এই দিনটি পালিত হয় মালদা জেলাতেও। এই মর্মে রামকৃষ্ণ মিশনের উদ্যোগে শহর জুড়ে যুগপুরুষ স্বামী বিবেকানন্দের ১৫৬ তম জন্মদিবস উপলক্ষ্যে ত্রক বণার্ঢ্য শোভাযাত্রার আয়োজন করা হয়েছিল।
স্বামী বিবেকানন্দের জন্মদিবস পালন হচ্ছে গোটা দেশ জুড়ে। যে মানুষটি ভারতবর্ষকে বিশ্বের মানচিত্রে একটা আলাদা জায়গায় পৌছে দিয়েছিলেন, সেই মানুষটিকে তাঁর জীবদ্দশায় সহ্য করতে হয়েছে সমাজে কটাক্ষ। ভন্ড সন্ন্যাসী থেকে ভন্ড মহারাজ নামে তাঁকে অভিহিত করা হয়েছে বার বার। তবু তিনি থেকেছেন, অবিচল,অটুট। সেই অদম্য গতির সন্ন্যাসী আজ আমাদের বিবেকের আনন্দ। সেই কারণেই স্বামী বিবেকানন্দ হয়তো বা মন্তব্য করতে হয়েছিল, আজ না হলেও ২০০ বছর পরে হয়তো আমার সঠিক মুল্যায়ণ হবে। ২০০ বছর সময় লাগেনি, আজ স্বামী বিবেকানন্দের জন্মদিবসে সেই মহাত্নার স্বরূপ আমরা উপলদ্ধি করতে পেরেছি। বিবেকানন্দের জন্মদিন গোটা দেশ ব্যাপি যুব দিবস হিসেবে পালন করা হয়। যুব দিবস উপলক্ষ্যে ত্রদিন মালদা জেলায় রামকৃষ্ণ মিশন কর্তৃপক্ষের উদ্যেগে আয়োজন করা হয়েছিল নানান অনুষ্টান। ত্রদিন সকালে শহরের রামকৃষ্ণ মিশন ঘাট সংলগ্ন স্বামীবিবেকানন্দের আবক্ষ মৃতিতে মাল্যদানের মাধ্যে দিয়ে সূচনা করা হয় তার। মাল্যদান করে শ্রদ্ধা ঞ্জাপন করেন,রামকৃষ্ণ মিশনের অধ্যক্ষ স্বামী ত্যাগরুপানন্দজী। মাল্যদান করে শ্রদ্ধাজ্ঞাপন করেন জেলা শাসক কৌশিক ভট্রাচার্যও। পরে শহর জুড়ে অনুষ্ঠিত হয় বিশাল প্রভাত ফেরি। স্বামীজীর বিভিন্ন বাণী ও প্লাকার্ড হাতে নিয়ে শহরের বিভিন্ন বিদ্যালয়ের ছাত্রছাত্রীরা অংশ নিয়েছিলো প্রভাত ফেরীতে।
মালদা শহরের পাশাপাশি পুরাতন মালদা শহরেও ত্রদিন মহাসাড়ম্বরে পালিত হয় যুগপুরুষ স্বামী বিবেকানন্দের ১৫৬ তম জন্মদিবস। পুরাতন মালদা পুরসভার উদ্যেগে ত্রদিন এই দিনটি যথাযথ মর্যদার সহিত পালিত করা হয়। স্বামী বিবেকানন্দের ১৫৬ তম জন্ম দিবস উপলক্ষ্যে ত্রদিন, মঙ্গলবাড়ি  থেকে পুরসভার উদ্যেগে ত্রক শোভাযাত্রা বের। বিভিন্ন স্কুলের কয়েকশো ছাত্রছাত্রী ছাড়াও শোভাযাত্রায় পা মিলিয়েছিলেন, পুরসভার চেয়ারম্যান কার্তিক ঘোষ সহ পুরসভার বিভিন্ন ওয়ার্ডের কাউন্সিলাররা। পরে পুরাতন মালদা পুরসভার উদ্যেগে মঙ্গলবাড়ির বুলবুলি মোড়ে অনুষ্টিত হয় ত্রকটি অনুস্টান। সেখানে স্বামি বিবেকানন্দ মৃর্তিতে মাল্যদান করেন  পুরসভার চেয়ারম্যান কার্তিক ঘোষ,ভাইস চেয়ারম্যান চন্দ্রনা হালদার সহ কাউন্সিলাররা।
পাশাপাশি ত্রদিন,মালদা জেলার গাজোল,মানিকচক, কালিয়াচক তিন নম্বর ব্লক ত্রবং রতুয়া ব্লকেও সারম্বরে পালন করা হয় স্বামী বিবেকানন্দের ১৫৬ তম জন্ম জয়ন্তী দিবস।


Published in Malda-Dinajpur-2

ডেস্ক, ১২ই জানুয়ারী ঃ প্রশাসনের দায়ের করা মিথ্যা মামলা প্রত্যাহারের দাবিতে আন্দোলনে নামল কংগ্রেস। ত্রদিন মামলা প্রত্যাহার সহ একাধিক দাবিতে মালদহের চাঁচল এক নম্বর ব্লক প্রশাসনকে ডেপুটেশন দিলো কংগ্রেস।
চাঁচল এক নম্বর ব্লক কংগ্রেসের দাবি গত ডিসেম্বরের ২৪ তারিখে সাংসদ মৌসম বেনজির নূর চাঁচল স্টেডিয়ামের ফলক উন্মোচন করেন। ওই ঘটনায় ব্লক কংগ্রেসের সভাপতির বিরুদ্ধে আনা অভিযোগ প্রত্যাহার করতে হবে। ওই দাবি সহ পঞ্চায়েতের দুর্নীতি নিয়ে ব্লক প্রশাসনের প্রয়োজনীয় পদক্ষেপ গ্রহণের দাবি নিয়ে ব্লক প্রশাসনের কাছে এইদিন সমারক লিপি দেয় চাঁচল ১ নম্বর ব্লক কংগ্রেস। এই বিষয়ে চাঁচল এক নম্বর ব্লকের বিডিও দূর্গা প্রসাদ শর্মা অবশ্য ব্লক কংগ্রেসের অভিযোগ প্রত্যাহারের দাবি নিয়ে কোন মন্তব্য করতে রাজি হয়নি। তিনি বলেন ওই বিষয়ে আমি কিছু বলল না। তবে ব্লক কংগ্রেসের অন্য দাবিগুলি সম্পর্কে তিনি বলেন, অভিযোগগুলি তদন্ত করে দেখা হবে।


Published in Malda-Dinajpur-2

ডেস্ক, ১২ই জানুয়ারীঃ  কালিয়াচক আবার পাচারের শিরোনামে তবে এবার জাল নোট বা কাফ সিরাফ নয় এবার বিরল প্রজাতির বহুমুল্য তক্ষক।  গত কাল সন্ধ্যায় দুইটি বহুমুল্য তক্ষক সহ এক পাচারকারী ধরা পড়ল সীমান্ত রক্ষী বাহিনীর ২৪ নম্বর ব্যাটেলিয়নের  হাতে। উদ্ধার হওয়া তক্ষক বনবিভাগকে এবং পাচারকারীকে পূলিশের হাতে তুলে দেওয়া হয়েছে।

বিএসএফ সুত্রে জানা যায় যে তারা গতকাল সন্ধ্যায় সোর্স মারফত খবর পান যে বৈষ্ণবনগর থানা এলাকা দিয়ে বাংলাদেশে তক্ষক পাচার করা হবে। সেই খবর পাওয়ার পর  ১৮ মাইল সংলগ্ন কলেজ মোড় ও পিটিএস মোড়ে হানা দেয় বিএস এফ-র ২৪ নম্বর ব্যাটেলিয়ন। সন্ধে ৭টা নাগাদ দুই সন্দেহভাজন ব্যক্তিকে কচুয়া রোড দিয়ে বাংলাদেশ সিমান্তের দিকে  মোটরবাইক নিয়ে যেতে দেখেন। ওই দুই ব্যক্তিকে জওয়ানরা তাড়া করলে  তারা পালানোর চেষ্টা করে। একজন পালিয়ে গেলেও দ্বিতীয় ব্যক্তি ধরা পড়ে যায়। তার সঙ্গে থাকা একটি ব্যাগ থেকে দুটি বহুমুল্য  তক্ষক উদ্ধার হয়। পরে তা বাজেয়াপ্ত করা হয়। একটি তক্ষক দেড় ফুট লম্বা, ওজন ১৫২ গ্রাম। দ্বিতীয়টির দৈর্ঘ্য সোয়া ফুট, ওজন ১২৫ গ্রাম। পরে বৈষ্ণবনগর থানার পুলিশ আধিকারিকদের উপস্থিতিতে তক্ষক দুইটিকে বনবিভাগের হাতে এবং পাচারকারীকে পুলিসের হাতে তুলে দেওয়া হয়।

Published in Malda-Dinajpur-2

ফটো গ্যালারী

Market Data

সম্পাদকের কথা

ফ্যান ছবিতে দেখা যাবে ১৭ বছরের শাহরুখকে

ফ্যান ছবিতে দেখ...

ডেস্ক: ছবির নাম যখন ফ্যান, আর অভিনয়ে যখন...

ধর্মীয় মৌলবাদীদের হামলায় খুন লেখক অভিজিৎ রায়

ধর্মীয় মৌলবাদীদ...

ঢাকা: একুশের বইমেলা থেকে ফেরার পথে ঢাকা ...

উদাসী হাওয়ায় গা ভাসিয়ে বলতেই পারেন, ""হোলি হ্যায়''!!!

উদাসী হাওয়ায় গা...

শান্তিনিকেতনে বসন্ত উত্সবের সূচনা হয় প্র...

বিবাহ বন্ধনে আবব্ধ হতে চলেছেন খ্যাতনামা অফ-স্পিনার হরভজন সিংহ

বিবাহ বন্ধনে আব...

কার্ত্তিক চন্দ্র পাল : ভারতের খ্যাতনামা ...

আপগ্রেড করুন

« January 2018 »
Mon Tue Wed Thu Fri Sat Sun
1 2 3 4 5 6 7
8 9 10 11 12 13 14
15 16 17 18 19 20 21
22 23 24 25 26 27 28
29 30 31        

MC News

Contact Us

Email: This email address is being protected from spambots. You need JavaScript enabled to view it.

Face Book: /newsbazar24 

Helpline No- 09434219594/9126173604