Newsbazar24.com / স্বাস্থ্য

  • কি করে ভালো রাখবেন আপনার স্বাস্থ্য, জেনে নিন

    27-Apr-19 07:52 am


    newsbazar24: শরীর ভালো থাকলে বাড়ে কাজের স্পৃহা। নিয়মিত যোগব্যায়াম, হাঁটাহাঁটি, খাদ্য তালিকা নিয়ন্ত্রণ প্রভৃতির মাধ্যমে মানুষ স্বাস্থ্য ঠিক রাখার উপায় খোঁজেন। কিন্তু ব্রিটেনের এক্সেটার বিশ্ববিদ্যালয়ের স্পোর্টস ও এক্সারসাইজ বিষয়ক শিক্ষক ড. নেডাইন স্যামি বলেছেন, আমাদের নিজেদের মনের ওপরে বিশেষ খেয়াল রাখা দরকার। আত্ম-সচেতনতা বাড়িয়ে মনের ওপরে আমাদের নিয়ন্ত্রণ বাড়ানো সম্ভব। ড. স্যামির মতে, আত্ম-সচেতনতা এমন এক জিনিস যা মানুষকে তার নিজের আবেগ, অনুভূতি ও ইচ্ছা-অনিচ্ছা অনেক নিবিড়ভাবে বুঝতে সহায়তা করে। নিজের অনুভূতিকে বোঝার মধ্য দিয়েই মানুষ নিজের স্বাস্থ্য ও সুরক্ষার দিকে সবচেয়ে বেশি মনোযোগ দিতে পারে। বলা যায় এটাই হতে পারে স্বাস্থ্য ভালো রাখার সবচেয়ে সহজ উপায়।ড. নেডাইনের মতে, নিজের সম্পর্কে ব্যক্তির ধারণা যত নির্ভুল ও গভীর হবে, ততই সে তার নিজের শক্তি ও দুর্বলতার দিকগুলো জানবে। এই জানার মাধ্যমেই নিজের দুর্বলতাগুলোকে কাটিয়ে ওঠা সম্ভব। এজন্য তিনি এমন কিছু কাজ করার পরামর্শ দিয়েছেন যা শারীরিকভাবে কর্মক্ষম থাকতে জিমে যাওয়া কিংবা ভোরবেলা দৌড়ানোর চেয়ে অনেক বেশি কায়িক শ্রমের ব্যবস্থা করবে।এই যেমন আপনাকে অনেক বেশি কায়িক পরিশ্রমে ব্যস্ত রাখতে পারে আপনার পোষা কুকুরটি। এবারিস্টউইথ বিশ্ববিদ্যালয়ের সাইকোলজি বিভাগের শিক্ষক ড. রিস থেচারের বক্তব্য, জিম হয়ত কারো কারো জন্য একটা ভালো সমাধান হতে পারে। কিন্তু তা সবার জন্য নয়। তাই এক্ষেত্রে মোক্ষম উপায় হতে পারে একটি কুকুর পোষা। কারণ কুকুরকে যদি দিনে দুই বার অন্তত ৩০ মিনিট করে হাঁটাতে হয় তখন আপনিও নিজে থেকেই হাঁটবেন। আর এভাবেই রোজকার হাঁটার ভেতর দিয়ে শরীর ও মনের সুরক্ষা হবে। সুস্বাস্থ্য অর্জন করতে হলে তারা পরামর্শ দিয়েছেন বিভিন্ন ধরনের উদ্ভিজ্জ খাদ্য গ্রহণের। বিশেষজ্ঞরা মনে করেন, সপ্তাহে অন্তত ৩০ পদের সবজি ও ফল-ফলাদি গ্রহণ করলে সুস্বাস্থ্য অর্জন করা সম্ভব। লন্ডন কিংস কলেজের একজন গবেষণা ফেলো ড. মেগান রসি বলেন, শুধু বেশি করে সবজি ও ফল-ফলাদি খেলেই হবে না। এর মধ্যে বিভিন্ন জাতের ভিন্নতাও থাকা জরুরি। প্রতি সপ্তাহে সব পদ মিলিয়ে যদি ভিন্ন-ভিন্ন ৩০ পদের সবজি ও ফল-ফলাদি খাওয়া যায় তাহলে তা স্বাস্থ্যের জন্য খুবই ভালো। আমাদের পাকস্থলীতে মাইক্রোবায়োম নামের একটি ব্যাকটেরিয়া রয়েছে। এই ব্যাকটেরিয়া মানুষের সুস্বাস্থ্যের ওপরে গভীরভাবে প্রভাব ফেলে। তাই বেশি বেশি লতা-পাতা ও উদ্ভিজ্জ সবজি খেতে পরামর্শ দিয়েছেন ড. রসি।সুস্থ থাকার জন্য বেশি বেশি হাসার পাশাপাশি দৈনিক গড়ে ৭ থেকে ৯ ঘণ্টা ঘুমানোর পরামর্শ দিয়েছে বিজ্ঞানীরা। একটানা ঘুমের ঘাটতি চলতে থাকলে শরীরের উপরে এর নেতিবাচক প্রভাব পড়ে। এক্সেটার ইউনিভার্সিটির স্পোর্ট এন্ড হেলথ সায়েন্স বিভাগের শিক্ষক ড. গেভিন বাকিংহাম বলেছেন, ঘুম কম হলে মানুষের নতুন জিনিস শেখার প্রক্রিয়া ব্যাহত হয়। তাই দেহ ও মনের স্বাস্থ্য সুরক্ষায় পর্যাপ্ত ঘুমের বিকল্প নেই।-বিবিসি

    Read : 1398
    Edit

Related Posts